তাজা খবর
দায়িত্ব নিলেন চট্টগ্রাম চেম্বারের নতুন পরিচালকেরা

দায়িত্ব নিলেন চট্টগ্রাম চেম্বারের নতুন পরিচালকেরা

নিউজ ডেস্ক: শতবর্ষী বাণিজ্য সংগঠন দি চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির ২০১৯-২১ মেয়াদের জন্য নতুন পরিচালকেরা দায়িত্ব নিয়েছেন।
রোববার (৩০ জুন) আগ্রাবাদের ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টারের বঙ্গবন্ধু কনফারেন্স হলে অনাড়ম্বর অনুষ্ঠানের মাধ্যমে দায়িত্বভার গ্রহণ করেন তারা।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বন্দর-পতেঙ্গা (চট্টগ্রাম-১১) আসনের সংসদ সদস্য এমএ লতিফ। চেম্বারের চতুর্থবারের মতো নির্বাচিত সভাপতি মাহবুবুল আলমের সভাপতিত্বে বর্তমান বোর্ডের সিনিয়র সহ-সভাপতি মো. নুরুন নেওয়াজ সেলিম ও সহ-সভাপতি সৈয়দ জামাল আহমেদ, নবনির্বাচিত সিনিয়র সহ-সভাপতি ওমর হাজ্জাজ ও সহ-সভাপতি তরফদার মো. রুহুল আমিন প্রমুখ বক্তব্য দেন।

এমএ লতিফ বলেন, বর্তমান বিশ্বে তরুণরাই নেতৃত্ব দিচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নবীনদের প্রাধান্য দিয়ে মন্ত্রিসভা গঠন করেছেন। এ দৃষ্টান্তে অনুপ্রাণিত হয়ে চট্টগ্রামের বনেদি ব্যবসায়ী পরিবারের তরুণ সদস্যদের নিয়ে নবীন-প্রবীণের সমন্বয়ে নির্বাচিত চিটাগাং চেম্বার পরিচালকমণ্ডলীর পক্ষে সাধারণ সদস্যদের প্রত্যাশা পূরণ করা সম্ভব।

তিনি জাতীয় স্বপ্ন বাস্তবায়নে সম্মিলিতভাবে কাজ করার পাশাপাশি দেশ ও দশের কল্যাণে নিজেদের উৎসর্গ করার জন্য নবনির্বাচিত পরিচালকদের প্রতি আহ্বান জানান।

মাহবুবুল আলম বলেন, চট্টগ্রামের বাণিজ্যিক ঐতিহ্য হাজার বছরের। বাণিজ্য সংগঠন হিসেবে চিটাগাং চেম্বারের পথচলা শত বছরের। বন্দর কেন্দ্রিক আমদানি-রফতানি বাণিজ্য, জাতীয় বাজেট প্রণয়নসহ উত্থাপিত যেকোনো সমস্যা সমাধানে এ চেম্বার কার্যকর ভূমিকা পালন করে থাকে।

সেই ঐতিহ্যের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে আগামী দিনের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় চেম্বারকে অধিকতর কার্যকর করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন চেম্বার সভাপতি।

চেম্বারের এ নেতৃত্ব সাধারণ সদস্যদের জন্য বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল স্থাপন, ওয়ার্ল্ড ট্রেড সেন্টার ক্লাব এবং সেন্টার অব এক্সিলেন্স চালুর ঘোষণা দেন চেম্বার সভাপতি।

নবনির্বাচিত সিনিয়র সহ-সভাপতি ওমর হাজ্জাজ বলেন, ঐতিহ্যবাহী এ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে দেশের ব্যবসা-বাণিজ্যের আধুনিকায়নে কাজ করার অনেক সুযোগ রয়েছে। এ চেম্বার ভবিষ্যতে ব্যবসায়ীদের জন্য নতুন নতুন অনেক সুযোগ-সুবিধা সৃষ্টি করতে পারবে।

নবনির্বাচিত সহ-সভাপতি তরফদার মো. রুহুল আমিন বলেন, বিবিআইএন, চীনের ওয়ান বেল্ট ওয়ান রোড, বিসিআইএম ইত্যাদি আঞ্চলিক ফোরামের জন্য চট্টগ্রাম অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তাই এসব ক্ষেত্রে চেম্বারের অবদান রাখার সুযোগ রয়েছে।

অনুষ্ঠান বিদায়ী পরিচালকদের সম্মাননা ক্রেস্ট ও নতুনদের ফুল দিয়ে বরণ করেন প্রধান অতিথি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*