তাজা খবর
কাশ্মীর-আসামে নিপীড়নের মধ্যেই মোদিকে নিয়ে নতুন চলচ্চিত্র

কাশ্মীর-আসামে নিপীড়নের মধ্যেই মোদিকে নিয়ে নতুন চলচ্চিত্র

কাশ্মীর ও আসামে মুসলমানদের ওপর দমনপীড়নের মধ্যেই ভারতীয় হিন্দুত্ববাদী প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে নিয়ে আরেকটি চলচ্চিত্র বানাতে যাচ্ছেন বলিউডের প্রযোজকরা।

মঙ্গলবার এএফপির খবরে এমন তথ্য জানা গেছে। চলতি বছরের শুরুতে ভারতীয় লোকসভা নির্বাচনের আগে মোদিকে নিয়ে বানানো প্রথম চলচ্চিত্রে তাকে এমন নিখুঁতভাবে দেখানো হয়েছে, বাস্তবে তিনি তেমনটি নন।

পরবর্তী সময়ে ১৯ মে শেষ হওয়া দীর্ঘ লোকসভা নির্বাচন সামনে রেখে ওই চলচ্চিত্রটির মুক্তি বিলম্ব করতে নির্দেশ দেয় ভারতীয় নির্বাচন কমিশন।

নতুন চলচ্চিত্রের নাম ‘মন বৈরাগী : জব মে মুঝছে মিলা’। যার বাংলা করলে দাঁড়ায় ‘সন্ন্যাসী হৃদয় : যখন আমার নিজের সঙ্গেই দেখা হলো’।

মঙ্গলবার মোদির ৬৯তম জন্মদিনে সিনেমার পোস্টার প্রকাশ করেছেন বলিউড তারকা অক্ষয় কুমার।

সঞ্জয় লীলা বানসালি ও মহাবীর জৈন প্রযোজিত এই ছবিটি মোদির জীবনের এক উল্লেখযোগ্য ঘটনা নিয়ে তৈরি করা হবে। দৈর্ঘ্য হবে এক ঘণ্টা।

সিনেমাটি পরিচালনা করবেন সঞ্জয় ত্রিপাঠি। ছবিতে কিশোর মোদির চরিত্রে দেখা যাবে নতুন অভিনয়শিল্পী অভয় বর্মাকে।

ছবি প্রসঙ্গে সঞ্জয় লীলা বানসালি বলেন, মন বৈরাগী ছবিতে পুরো বিশ্বের মানুষের জন্য শিক্ষণীয় অনেক বিষয় আছে, যেগুলো আমার আগ্রহ বাড়িয়েছে।

তিনি বলেন, এতে মোদির অল্প বয়সে জীবনের মোড় ঘুরে যাওয়ার ঘটনাগুলো থাকবে। আমার মনে হয়েছে, কাহিনীটি অনেকেরই জানা নেই, তাই জানানো দরকার।

এর আগে চলতি বছরের ২৪ মে বলিউড অভিনেতা বিবেক ও’বেরয়ের অভিনয়ে ‘পিএম নরেন্দ্র মোদি’ নামে মোদির প্রথম বায়োপিকটি বাজারে আসে।

মহাবীর জৈন বলেন, আমি নিশ্চিত, এটি আজকের তরুণদের গভীরভাবে অনুপ্রাণিত ও সংযুক্ত করবে।

মোদিকে নিয়ে নির্মিত আগের ছবির সমালোচকরা বলেন, চলচ্চিত্র কীভাবে প্রপাগান্ডা হিসেবে ব্যবহার করতে হয়, সে বিষয়ে পড়াশোনা করা উচিত ছিল।

গত ৫ আগস্ট অধিকৃত কাশ্মীরের সাংবিধানিক স্বায়ত্তশাসনের অধিকার কেড়ে নেয়ার ঘোষণা দেয় মোদির হিন্দুত্ববাদী সরকার। এরপর থেকেই মুসলমান অধ্যুষিত রাজ্যটিতে অচলাবস্থা চলছে।

এছাড়া আসামেও জাতীয় নাগরিক নিবন্ধনের চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। যেখানে ১৯ লাখ মানুষকে রাষ্ট্রহীন বলে উল্লেখ করা হয়েছে। যাদের অধিকাংশই মুসলমান বলে ধারনা করা হচ্ছে। নাগরিকত্ব প্রমাণ করতে না পারলে এসব মানুষকে ডিটেনশন ক্যাম্পে বন্দি করে রাখা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*