তাজা খবর
‘সরকারের উন্নয়ন নিয়ে লেখা মানে দালালি করা নয়’

‘সরকারের উন্নয়ন নিয়ে লেখা মানে দালালি করা নয়’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দশটি বিশেষ উদ্যোগ নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশের জন্য বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থার (বাসস) সঙ্গে চট্টগ্রাম থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক একুশে পত্রিকার মধ্যে সমঝোতা স্মারক সই হয়েছে।

শনিবার (০২ নভেম্বর) বিকেলে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে বাসসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ এবং একুশে পত্রিকার সম্পাদক আজাদ তালুকদার নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে সমঝোতা স্মারকে সই করেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির ছিলেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর দশটি বিশেষ উদ্যোগ শুধু আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মী বা শুধু বঙ্গবন্ধুর অনুসারীদের জন্য নয়। এসব উদ্যোগ সব নাগরিকের জন্য। আমরা যারা এদেশের নাগরিক, আমাদের সবার জন্য এই দশটি বিশেষ উদ্যোগ।

মেয়র বলেন, এই দশটি উদ্যোগ একেবারে সময়োপযোগী। দশটি উদ্যোগের সুফল এখন আমরা পাচ্ছি। দেশে এখন শিক্ষার হার বৃদ্ধি পেয়েছে। মাতৃমৃত্যুর হার কমেছে। শিশুমৃত্যুর হার কমেছে। দারিদ্রতা কমেছে। ২০০৬ সালে শতকরা ৪২ জন দরিদ্র ছিল। এখন সেটা ২০-এ নেমে এসেছে।

প্রধানমন্ত্রীর দশটি উদ্যোগের ফলে সাধারণ মানুষ যে সুফল পাচ্ছে তা গণমাধ্যমে তুলে ধরা সবচেয়ে বেশী প্রয়োজন বলে এ সময় মন্তব্য করেন মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন।

সভাপতির বক্তব্যে বাসসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ বলেন, নৈতিক দায়িত্ব থেকে দশটি বিশেষ উদ্যোগের প্রচার করা উচিত। আমাদের মধ্যে একটা ধারণা আছে- সরকারের উন্নয়ন নিয়ে লেখা মানে দালালি করা। অথচ উন্নয়ন হচ্ছে, এটা আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত।

তিনি বলেন, ১৯৯৬ সালে ক্ষমতায় আসার পর ২০০১ সালে যখন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ক্ষমতা ছাড়লেন তখন বিদ্যুৎ উৎপাদন ছিল ৪ হাজার ২০০ মেগাওয়াট। ২০০৮ এর নির্বাচনের পর যখন আবার ক্ষমতায় আসলেন, তখন দেশে বিদ্যুৎ উৎপান ৩ হাজার ২০০ মেগাওয়াট। এক হাজার মেগাওয়াট নাই। আজকে লোডশেডিং নেই বললেই চলে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (উন্নয়ন) মো. নুরুল আলম নিজামী, জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেন, পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদ চট্টগ্রামের সভাপতি প্রফেসর ডা. একিউএম সিরাজুল ইসলাম, চট্টগ্রাম রিপোটার্স ফোরামের সভাপতি কাজী আবুল মনসুর, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সহ-সভাপতি রিয়াজ হায়দার চৌধুরী প্রমুখ।

উপস্থিত ছিলেন একুশে পত্রিকার সম্পাদকীয় উপদেষ্টা নজরুল কবির দীপু, এইচএম জামাল উদ্দিন, ব্যবসায়ী ও শিল্পোদ্যোক্তা মো. নাছির উদ্দিন, বাসসের ভ্রাম্যমাণ প্রতিনিধি রোটারিয়ান দেবদুলাল ভৌমিক, চট্টগ্রাম রিপোর্টার্স ফোরামের সাধারণ সম্পাদক আলীউর রহমান, বিজনেস স্ট্যান্ডার্ড চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান শামসুদ্দিন ইলিয়াছ, ইন্ডিপেন্ডেন্ট টেলিভিশনের চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান অনুপম শীল, সময় টেলিভিশনের সিনিয়র রিপোর্টার পার্থ প্রতিম বিশ্বাস, ব্যবসায়ী জাহাঙ্গীর আলম ও টিপু সুলতান সিকদার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*