তাজা খবর
‘সৎ পথে কামাই করে লবণ-ভাত খাওয়া ভালো’

‘সৎ পথে কামাই করে লবণ-ভাত খাওয়া ভালো’

নেতাকর্মীদের সৎ পথে চলার নির্দেশ দিয়ে আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, অসৎ পথে বিরানি খাওয়ার থেকে সৎ পথে কামাই করে লবণ ভাত খাওয়া ভালো। এটা আমি মনে করি, যা জাতির পিতা শিখিয়েছেন। আমাদের সেইভাবে প্রজন্মকে শিখিয়ে যেতে হবে।

স্পেন সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রোববার স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় হোটেল ভিলা ম্যাগনায় প্রবাসী বাংলাদেশীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময়কালে এ কথা বলেন।

সাম্প্রতিক দুর্নীতি বিরোধী অভিযানের বিষয়ে ইঙ্গিত করে শেখ হাসিনা বলেন, ঘুষ, দুর্নীতি করে কিংবা ছিনতাই-সন্ত্রাস করে টাকা বানিয়ে সেই টাকা দিয়ে একেবারে ফুটানি দেখিয়ে মনে করতো, আমরা যেন কি হয়ে গেছি। মানে, মুই কি হনুরে ভাব। এই মানসিকতা যেন না থাকে। সমাজের এই সমস্ত অসুস্থতা আমাদের দূর করতে হবে।

তিনি বলেন, সন্ত্রাস দমন, জঙ্গি দমন, মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান, দুর্নীতির বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে।

বিগত বছরগুলোতে আওয়ামী লীগ সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপে দেশের অগ্রগতির কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের উন্নয়নের ‘ম্যাজিকটা’ কি অনেকে জানতে চান। আমি বলি ম্যাজিকটা কিছু না। দেশকে ভালোবাসি, মানুষকে ভালোবাসি। আমার বাবার কাছ থেকে শিখেছি, দেশের কল্যাণে কাজ করা।

তিনি বলেন, আমার আর কোনো কাজ নেই, বাংলাদেশের জনগণের হোল টাইম ওয়ার্কার আমি। আমি দেশের জনগণের জন্য কাজ করে যাই।

বাংলাদেশের অগ্রযাত্রায় প্রবাসী বাংলাদেশীদের অবদানের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, প্রবাসী যারা আছেন আপনাদের যথেষ্ট অবদান আমাদের এই উন্নয়নে। আমাদের রিজার্ভের টাকা দিয়ে, আমাদের নিজেদের ব্যাংকের টাকা দিয়ে আমরা এই ড্রিমলাইনার কিনলাম। অন্য ব্যাংক থেকে, বিদেশ থেকে আমরা ধার নেবো কেন! আমাদের ব্যাংকের টাকা দিয়ে আমরা উন্নয়ন করবো। কাজেই এখানে আপনাদের বড় অবদান রয়েছে।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন, পরিবেশ বন ও জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মো. নজিবুর রহমান, প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম, স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাছান মাহমুদ খন্দকার প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে স্পেন আওয়ামী লীগের সভাপতি এসআরআইএস রবিন এবং সাধারণ সম্পাদক মো. রিজভী আলম প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*