চট্টগ্রাম

তালা ভেঙে ফাঁকা বাসায় চুরি, গ্রেপ্তার আরও ২

নগরের চান্দগাঁওয়ে আবাসিক এলাকার একটি বাসার তালা কেটে স্বর্ণালঙ্কার, টাকা ও প্রাইজবন্ড চুরির ঘটনায় জড়িত আরও দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এসময় তাদের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে এক ভরি স্বর্ণ, চোরাই কাজে ব্যবহৃত যন্ত্রপাতি এবং ৫শ’ পিস ইয়াবা।

বুধবার (১৫ মে) নগরের চান্দগাঁও ও কোতোয়ালী থানায় পৃথক অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তাররা হলেন— আব্দুল্লাহ আল হৃদয় প্রকাশ রিফাত (২২) এবং মো. কামাল হোসাইন মুন্না (২৪)।

পুলিশ জানায়, গত ১৯ মার্চ চান্দগাঁও আবাসিক এলাকার এ ব্লকের একটি বাসার দরজার তালা কেটে স্বর্ণালংকার, নগদ টাকা ও প্রাইজবন্ড নিয়ে যায় চোরেরা। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেন। ঘটনাস্থলের সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ পর্যালোচনা করে ১৯ এপ্রিল রবিন (২৪) নামে একজনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও চান্দগাঁও থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. মোমিনুল হাসান বলেন, ‘গ্রেপ্তার রবিনকে জিজ্ঞাসাবাদে আমরা গুরুত্বপূর্ণ কিছু তথ্য পাই। সেই তথ্যের ভিত্তিতে গতকাল (বুধবার) কোতোয়ালী থানার সিআরবি এলাকা থেকে আসামি রিফাতকে গ্রেপ্তার করি। তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে আবার চান্দগাঁওয়ের মেহেরাজখান চৌধুরী ঘাটা এলাকা থেকে আরেক আসামি কামাল হোসাইন মুন্নাকে গ্রেপ্তার করা হয়।’

তিনি আরও বলেন, ‘চুরির পর মালামালগুলো মূলত মুন্নার কাছেই ছিল। তারা মাদক ব্যবসার সাথেও জড়িত। আমরা মুন্নাকে গ্রেপ্তারের সময় চোরাই মালামাল এবং যন্ত্রপাতির পাশাপাশি ৫শ’ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করি।’

চান্দগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহিদুল কবির সিভয়েস২৪-কে বলেন, ‘আসামিরা পেশাদার অপরাধী। তারা ভবঘুরে হয়ে নগরের বিভিন্ন থানা এলাকায় দিনের বেলা ও রাতের বেলা ঘুরে বেড়ায়। তারা বিভিন্ন বাড়ির দিকে নজর রাখে। কোনো ঘরে আলো না থাকলে তারা মনে করে সে বাসার লোকজন নেই। আবার বিভিন্ন বাসা বাড়িতে সিঁড়ি দিয়ে ওঠে দেখে তালা দেওয়া আছে কিনা। তালা দেওয়া থাকলে তারা সে বাসাকে টার্গেট করে কাটার দিয়ে কেটে চুরি করে। আবার কোনো বাড়িতে দারোয়ান না থাকলে সুযোগ বুঝে বিল্ডিংয়ে ওঠে। পরে তালা দেওয়া বাসার দরজা লোহার কাটার ও প্লাস দিয়ে ভেঙে স্বর্ণালংকার, নগদ টাকা ও মূল্যবান জিনিসপত্র চুরি করে।’

‘গ্রেপ্তার আসামিদের বিরুদ্ধে একাধিক চুরি ও মাদক মামলা আদালতে বিচারাধীন রয়েছে। তাদের কাছ থেকে চোরাই মালামালের পাশাপাশি মাদক উদ্ধার হওয়ায় সংশ্লিষ্ট আইনে আরও একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে’ —যোগ করেন ওসি জাহিদুল কবির।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *